জীবন দর্শন ভ্রমন স্বাস্থ্য ইতিহাস অনুপ্রেরণা চাকরি জানা-অজানা বিশেষ প্রতিবেদন সাক্ষাৎকার

‘জয় বাংলা-জয় বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে আপস হতে পারে না’

0

ভিন্ন জোটে থেকেও তিনি নিজে কখনো বঙ্গবন্ধুর আদর্শ থেকে বিচ্যুত হননি বলে জানিয়েছেন সুলতান মোহাম্মদ মনসুর। সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ গ্রহণের পরপরই সংসদ অধিবেশনে যোগ দিয়ে এমনটাই মন্তব্য করেছেন ঐক্যফ্রন্ট থেকে নির্বাচিত এমপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর। দলের অমতে সংসদে যোগ দেওয়ায় শপথ গ্রহণের ৬ ঘন্টার মধ্যেই তাকে তার দল গণফোরাম থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাতে জাতীয় সংসদে ৭ মার্চের ভাষণের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে সুলতান মোহাম্মদ মনসুর বলেন, ‘জয় বাংলা-জয় বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে কোনো আপস হতে পারে না।’

তিনি বলেন, বাংলাদেশ জয় বাংলা-জয় বঙ্গবন্ধু একনামে পরিচিত। বঙ্গবন্ধুর পথই হচ্ছে সঠিক পথ, দুঃখী মানুষের মুখে হাসি ফোটানোই ছিল বঙ্গবন্ধুর লক্ষ্য। জনগণই ক্ষমতার উৎস্য, জনগণ ক্ষমতার উৎস হলে বাংলাদেশের জনগণই শেষ কথা।

শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে প্রাথমিক সদস্যপদ বাতিল করে দল থেকে সুলতান মোহাম্মদ মনসুরকে বহিষ্কার করেছে গণফোরাম। বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে গণফোরামের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ সিদ্ধান্তের কথা দলটির জানান সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মোহসীন মন্টু।

মন্টু বলেন, গণফোরাম থেকে বহিষ্কারের সঙ্গে সঙ্গে সুলতান মনসুরকে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের স্টিয়ারিং কমিটির সদস্যপদ থেকেও অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

এর আগে সকাল ১১টায় জাতীয় সংসদের শপথ কক্ষে তাকে শপথ বাক্য পাঠ করান স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী। ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনে মৌলভীবাজার-২ আসন থেকে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত হন গণফোরাম নেতা সুলতান মনসুর। তবে একই দলের সিলেট-২ আসন থেকে নির্বাচিত প্রার্থী মুকাব্বির খান আপাতত শপথ নিচ্ছেন না বলে গণফোরাম থেকে বুধবার বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়।

সারা দেশে ঐক্যফ্রন্ট থেকে বিজয়ী ৮ জনের মধ্যে ৭ জন প্রার্থী ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচন করে বিজয়ী হয়। যাদের মধ্যে বিএনপি মনোনীত বিজয়ী ৬ প্রার্থী শপথ নেবেন না বলে দলটির পক্ষ থেকে একাধিকবার জানানো হয়। বাকী ২জন গণফোরামের মনোনীত।

সুলতান মোহাম্মদ মনসুর নিজে সংসদের যোগ দেওয়ার পর বাকী ৭জনকেও সংসদে যোগ দেওয়ার আহবান জানিয়েছেন।

ফেইসবুক মন্তব্য

Leave A Reply