জীবন দর্শন ভ্রমন স্বাস্থ্য ইতিহাস অনুপ্রেরণা চাকরি জানা-অজানা বিশেষ প্রতিবেদন সাক্ষাৎকার

অলিম্পিক নীতি মানছে না ভারত

0

একটি শুটিং প্রতিযোগিতায় পাকিস্তানি শুটারদের ভিসা না দেওয়ায় ভারতের ওপর খেপেছে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি)

কাশ্মীরের পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলায় ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ান নিহত হওয়ার জন্য ভারত প্রথম থেকেই দায়ী করছে পাকিস্তানি মদদকে। এ কারণে শিল্প-সংস্কৃতি থেকে শুরু করে ক্রীড়াঙ্গনেও পাকিস্তানকে বয়কট করার রাস্তায় হাঁটছে ভারত। তবে এ উদ্যোগের কারণে বিপদেই পড়তে হচ্ছে ভারতের ক্রীড়াঙ্গনকে। সম্প্রতি একটি শুটিং টুর্নামেন্টে পাকিস্তানি শুটারদের ভিসা না দেওয়ায় আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি) খেপেছে ভারতের ওপর। তারা জানিয়ে দিয়েছে ভবিষ্যতে এ অবস্থার বদল না হলে ভারতে কোনো ‘অলিম্পিক ইভেন্ট’ অনুষ্ঠিত হবে না।
আইওসি অন্যান্য আন্তর্জাতিক ক্রীড়া সংস্থাকেও অনুরোধ জানিয়েছে তাদের পদাঙ্ক অনুসরণ করতে। তাদের মতে, পাকিস্তানি শুটারদের ভিসা না দেওয়ার ঘটনা অলিম্পিক চার্টারের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন। এতে আছে, রাজনীতির কারণে কোনো দেশ নির্দিষ্ট কোনো দেশের ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ আটকাতে পারে না। এমনকি কোনো টুর্নামেন্টে রাজনৈতিকভাবে বৈরী কোনো দেশ থাকলেও তাদের বিপক্ষে খেলা বয়কট করা যাবে না।
আইওসি জানতে চেয়েছিল ওই প্রতিযোগিতায় পাকিস্তানি শুটারদের ভিসা কেন দেওয়া হয়নি। ভারত সরকারের সঙ্গেও তারা ওই ব্যাপারে কথা বলেছিল। অনুরোধ জানিয়েছিল পাকিস্তানি ক্রীড়াবিদদের ভিসা দেওয়ার। কিন্তু এ ব্যাপারে ভারতীয় কর্তৃপক্ষের ইতিবাচক সাড়া না পেয়ে ভারতীয় অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে সব ধরনের আলোচনা স্থগিত ঘোষণা করে তারা। শুধু তা-ই নয়, আগামীদিনে ভারত আইওসির কাছে যে সব প্রতিযোগিতা আয়োজনের আবেদন করে রেখেছিল, সেগুলোও বাতিল হয়ে গেছে। ভিসা-সংক্রান্ত সমস্যার সমাধান না হলে ভবিষ্যতে আইওসি অনুমোদিত কোনো ক্রীড়া প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে পারবে না ভারত।
ভারতীয় অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশন ভবিষ্যতে বেশ কয়েকটি বড় প্রতিযোগিতা আয়োজনের আবেদন করে রেখেছে। ২০২৬ সালে দিল্লিতে যুব অলিম্পিক, ২০৩০ সালে এশিয়ান গেমস আয়োজনের স্বপ্ন দেখছে ভারত। পাশাপাশি ২০৩২ সালের অলিম্পিকের ব্যাপারেও আগ্রহী ভারত।

ফেইসবুক মন্তব্য

Leave A Reply